আমেরিকায় বাড়ির দাম কেমন, বাড়ি কিনার সঠিক পদ্ধতি (বিস্তারিত ২০২৩)

আমেরিকায় বাড়ির দাম কেমন, বাড়ি কিনার সঠিক পদ্ধতি (বিস্তারিত ২০২৩)

আমেরিকায় বাড়ির দাম কেমন এই সংক্রান্ত আজকের আর্টিকেলে বিস্তারিত আলোচনা করা হয়েছে। আপনারা যারা এই সংক্রান্ত বিষয় সম্পর্কে জানতে আগ্রহী তারা পুরো কনটেন্ট জুড়ে আমাদের সঙ্গে থাকুন। ইনশাআল্লাহ আপনারা আমেরিকায় বাড়ি কেনার সঠিক পদ্ধতি, দাম কেমন, কিভাবে কিনবেন এই সকল তথ্য সম্পর্কে জানতে পারবেন। চলুন এই সকল তথ্যগুলো জেনে নেওয়া যাক।

আমরা অধিকাংশ মানুষই আমাদের জীবনের সবচেয়ে বড় আর্থিক সিদ্ধান্ত নিয়ে থাকি বাড়ি কেনার সময়। আমরা অনেকেই রয়েছি আমাদের স্বপ্নের দেশ আমেরিকাতে বাড়ি কেনার সিদ্ধান্ত নিয়ে। আমরা অনেকেই স্বপ্ন দেখি এটা। অভিবাসীরা মূলত বাইরের দেশে বাড়ি কেনার স্বপ্নটা বেশি দেখে থাকেন। তারা স্বাভাবিকভাবেই ভাবেন আমেরিকায় যদি একটি নিজের বাড়ি কিনতে পারতাম।
আমেরিকায় অন্যান্য সকল অঙ্গরাজ্য গুলোর তুলনায় নিউইয়র্কে বাড়িতে না সবচেয়ে বেশি ব্যয়বহুল। নিউইয়র্কের রয়েছে উন্নত যোগাযোগ ব্যবস্থা, স্বাস্থ্য বীমা সহজলভ্যতা, এছাড়াও যাবতীয় সকল রকম সুযোগ-সুবিধা পাওয়া যায়। আমেরিকায় যারা বাসা কিনতে চান তারা মূলত নিউইয়র্কের টার্গেট করে থাকেন। কেননা সেখানে সবচেয়ে বেশি সুযোগ-সুবিধা পাওয়া যায়।

আমেরিকায় বাড়ির দাম কেমন

আমেরিকায় বিভিন্ন অঞ্চলে বিভিন্ন রকম বাড়ির দাম হয়ে থাকে। আপনি যদি নিউইয়র্কে একটি বাসা বা হাউস নিতে চান তবে আপনার রেজিস্ট্রেশন ফি বাবদ যাবতীয় খরচ হবে প্রায় ৭ থেকে 8 লক্ষ মার্কিন ডলার। যা বাংলাদেশী টাকায় প্রায় ৭ থেকে ৮ কোটি টাকার মতো। আমেরিকায় যদি কোন হাউজ পছন্দ হয় তবে তার দাম কমে না তুলনামূলকভাবে বাড়তে থাকে।
যেমন অনেক সময় দেখা যায় ৭ কোটি টাকা দামের বাড়ি পছন্দ হওয়ার কারণে ৭ কোটি ২০ লক্ষ টাকা দিয়েও কেনে। যদি আপনি আমেরিকায় বাড়ি কিনতে চান আর বাড়ি যদি আপনার পছন্দ হয় তবে খুব দ্রুতই বাড়িটি কিনে নেবেন না হলে অন্য কেউ আপনার চেয়ে বেশি মূল্য দিয়ে নিয়ে নেবে।
যদি আমরা পাঁচ বছর আগেকার কথা বলি তবে সেই সময় আমেরিকার নিউইয়র্কে মোটামুটি ভাবে ৫ কোটি টাকার মধ্যে ভালো হাউস পাওয়া সম্ভব ছিল। কিন্তু বর্তমান সময়ে সেই সকল হাউস গুলোর মূল্যই হয়েছে প্রায় সাত কোটি বা তার ওপরে। আশা করি আপনারা বুঝতে পেরেছেন আমেরিকায় বাড়ির দাম কেমন হতে পারে সে সম্পর্কে।

আমেরিকায় বাড়ি কেনার সঠিক পদ্ধতি

আমেরিকায় বাড়ি কেনার জন্য বেশ কিছু পদ্ধতি রয়েছে। যে সকল পদ্ধতি গুলো অবশ্যই বাড়ি কেনার পর্বে আপনি দেখে বুঝে নিতে হবে। বাড়ি কেনার যে সকল নিয়ম রয়েছে সে সকল নিয়ম গুলো অবশ্যই আপনাকে মেনে চলতে হবে। এই সংক্রান্ত বিস্তারিত তথ্য নিচে উল্লেখ করা হলো।

আমেরিকায় বাড়ি কেনার পূর্বে যেগুলো জানা প্রয়োজন

আপনারা যারা আমেরিকায় বাড়ি কিনতে চান তাদের বেশ কয়েকটি বিষয়ে জানার প্রয়োজন। তাছাড়া আপনারা প্রতারণার শিকার হতে পারেন। যে সকল বিষয়গুলো আপনাদের অবশ্যই জানা প্রয়োজন তা নিম্নে উল্লেখ করা হলো।

প্রথমে রিয়েল এস্টেট এজেন্ট / ব্রোকার নিয়োগ দিন

আমরা অনেকেই ভেবে থাকি বাড়ি বিক্রয়ের ক্ষেত্রে এজেন্ট বা ব্রোকার এর প্রয়োজন। কিন্তু আসলে এটা সঠিক নয়, বাড়ি কেনার ক্ষেত্রে ও এজেন্ট এবং ব্রোকার এর প্রয়োজন হয়। বাড়ি কেনার সময় এজেন্ট এর প্রয়োজন হয় কারণ তারা আপনার প্রতিনিধিত্ব করবে। তাদের বেশ কয়েকটি বিষয় মেনে চলতে হবে যেমন, কর্তব্য পরায়ণতা, আনুগত্য, দৃষ্টিগোচর, গোপনীয়তা রক্ষা, দায়িত্ববোধ, যুক্তি সঙ্গত যত্ন।
ক্রেতা হিসেবে যদি আপনারা বিক্রেতা এজেন্ট এর মাধ্যমে বাড়ি কেনেন তবে আইনগতভাবে সেই এজেন্ট এই সকল দায়িত্ব গুলো পালন করবে না। সুতরাং আপনি সেখানের সঠিক তথ্য ইনফরমেশন গুলো নাও পেতে পারেন। কারণ সেই এজেন্ট আপনার কাছে সঠিক তথ্য না ও প্রদান করতে পারে। তাই বাড়ি কেনার পূর্বে সর্বপ্রথম আপনারা একটি এজেন্ট বা ব্রোকার নিয়োগ দিন। যেন সকল রকমের তথ্য এবং অন্যান্য সুযোগ-সুবিধা পান।

বাড়ি খুঁজুন এবং পছন্দ করুন

আপনি বাড়ি কেনার জন্য যে এজেন্টকে নিয়োগ দিয়েছেন সে আপনার চাহিদা মত আপনাকে বাড়ি দেখাবেন। আপনার চাহিদা যেমন সেই অনুযায়ী এলাকা, বাসা এগুলো খুঁজে আপনার সঙ্গে আলোচনা করবে। তারপরে আপনি আপনার পছন্দ অনুযায়ী বাড়ি কিনবেন।
অবশ্যই বাড়িটি কেনার পূর্বে বাড়িটিতে কোন আইনগত সমস্যা আছে কিনা, বা পরবর্তীতে আপনার ইচ্ছা মত বাড়িতে পরিবর্তন করতে পারবেন কিনা, বাড়িটির স্টাইল চেঞ্জ করতে পারবেন কিনা এগুলো জেনে বুঝে নেবেন।
উন্নয়ন কাজে পরিবর্তন করতে চাইলে তাদের ভবন বিভাগের অনুমোদন রয়েছে কিনা বা কোন অভিযোগ আছে কিনা এই সকল বিষয়গুলো জেনে নেবেন। বাড়িটি কেনার জন্য অবশ্যই সকল ডকুমেন্টস গুলো খুব ভালোভাবে দেখে বোঝে নেবেন।
আমেরিকায় বাড়ির দাম কেমন, বাড়ি কিনার সঠিক পদ্ধতি (বিস্তারিত ২০২৩)

বাড়ির ঋণের জন্য প্রাক অনুমোদন সংগ্রহ করতে হবে

বাড়ি এনার জন্য আপনার আর্থিক সক্ষমতা সর্বপ্রথম প্রয়োজন হবে। আপনি কেমন অর্থ আয় করেন তার ওপর নির্ভর করে ব্যাংক আপনাকে ঋণ দেবে। এক্ষেত্রে সবচেয়ে বড় ভূমিকা পালন করবে আপনার ক্রেডিট স্কোর। আপনারা বাড়ি কেনার পূর্বে যেই এজেন্ট বা ব্রোকার নিয়োগ দিয়েছেন তাদের কাছ থেকে বিভিন্ন এলাকার বাড়ির দাম, ট্র্যাক, বিদ্যুৎ বিল, পানি বিল, ইন্সুরেন্স ইত্যাদি সম্পর্কে একটি ধারণা নেবেন।
তাহলে বাজেট তৈরিতে আপনাকে এগুলো সহায়তা করবে। বিভিন্ন ব্যাংক ও আর্থিক প্রতিষ্ঠান বিভিন্ন ধরনের ঋণ প্রকল্প রয়েছে সেখান থেকে আপনি আপনার উপযুক্ত ঋণ প্রকল্পটি গ্রহণ করতে পারেন। বাড়ি কেনার পূর্বে আপনারা প্রয়োজনীয় ডাউন পেমেন্টের টাকা ব্যাংকে রাখবেন এতে করে বাড়ি কেনার প্রক্রিয়া দ্রুত সম্পন্ন হবে।
আপনারা যদি এই সংক্রান্ত আর অন্যান্য তথ্য জানতে চান তবে আমাদের কমেন্ট বক্সে কমেন্ট করতে পারেন। আমরা আপনার প্রশ্নের উত্তর দেবার চেষ্টা করব ইনশাআল্লাহ।

Leave a Comment